শিরোনামঃ

» ঝিকরগাছার গদখালিতে কিশোরীকে শ্লীলতাহানীর চেষ্টায় মামলা, আসামীদের গ্রেফতারের দাবী 

প্রকাশিত: ১০. জানুয়ারি. ২০২১ | রবিবার

বিশেষ প্রতিনিধি।।ঝিকরগাছার গদখালি কিশোরীকে শ্লীলতাহানীর চেষ্টায় থানায় মামলা ও আসামীদের গ্রেফতারের দাবী জানিয়েছেন এলাকার সচেতন মহল।

উপজেলার গদখালী ইউনিয়নের সৈয়দপাড়া গ্রামের সিদ্দিকের ছেলে ন্যাদা @ ট্যারা ন্যাদা (৩৫), মোহাম্মদ আলীর ছেলে তরিকুল ইসলাম (২০) মানিকের ছেলে আল আমিন @ কাট বিরাল (২২) কে বিবাদী করিয়া একই গ্রামের আলী আকবরের ছেলে বাদী হয়ে একটি লিখিত এজাহার দায়ের করেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ৪/১/২১ ইং তারিখ বিকাল সাড়ে ৩টায় গদখালী সৈয়দপাড়া গ্রামের মেয়ে ও নবীবনগর দাখিল মাদ্রাসার ৯ম শ্রেণীর ১৭ বছরের ছাত্রী তার পড়ার বই জমা দেওয়ার জন্য বাড়ি থেকে রওনা হয়। বেলা ৪:৪৫ মিনিটে মাদ্রায় বই জমা দিয়ে বাড়ী ফেরার পথিমধ্যে ৫:৪৫ মিনিটে অত্র থানাধীন সৈ য়দপাড়া গ্রামস্থ জনৈক রমজান গাজীর রাইচ মিলের ২শ গজ দূরে পাঁকা রাস্তার উপর পৌছানো মাত্রই আসামীরা একে অপরের সহযোগীতায় বাদীর মেয়েকে জাপটাইয়া ধরিয়া টানা-হেচড়া করে শরীরের বিভিন্ন স্পর্শকাতর স্থানে হাত দেয়।

তখন বাদীর মেয়ে চিৎকার চেচামেচি করিলে আসামীরা বাদীর মেয়ের হাত বেঁধে রাখে এবং মুখ চাপিয়া ধরে পার্শ্ববর্তী ট্রেন রাস্তার উপর নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। ঐসময় তার চিৎকারে স্থানীরা ছুটে আসলে তখন আসামীরা তাকে ফেলে পালিয়ে যায়। থানায় মামলা নং -৫।

ঘটনার বিষয়ে অবগত হয়ে গতকাল বিকালে নির্যাতিতা কিশোরীকে সমবেদনা এবং সাহস যোগাতে, সেইসাথে তারা যেন সঠিক আইনি সহায়তা পেতে পারেন তার জন্য নির্যাতিতার পরিবারের পাশে দাঁড়ায় ঝিকরগাছা সেচ্ছাসেবী সংগঠন এর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাস্টার আশরাফুজজামান বাবু, জেডিও সংগঠনের নির্বাহী পরিচালক এবং সেবা সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মনির, ডিআরও সংগঠনের নির্বাহী পরিচালক মনিরা বেগম, বাংলাদেশ মানবাধিকার কল্যান ট্রাস্টের উপজেলা শাখার যুগ্ম সম্পাদক আঃ সবুর ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মেজবাহুর রহমান ঘটনাস্থলে পৌঁছালে এলাকার সচেতন মহলের ভিড় জমে যায়।

এলাকার সচেতন মহল ঘটনার সাথে জড়িত সকল আসামীদের আইনের আওতায় এনে শাস্তি দাবি জানান।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৭৮ বার

[hupso]
সর্বশেষ খবর
বেনাপোল প্রতিনিধি।।  বাংলাদেশ রেলওয়ের উন্নয়নের কাজ দ্রুত সম্প্রসারিত হচ্ছে। মাননীয়…