শিরোনামঃ

» মোংলায় হাম-রুবেলা টিকাদান ক্যাম্পেইনের উদ্বোধন

প্রকাশিত: ১২. ডিসেম্বর. ২০২০ | শনিবার

মাসুদ রানা, মোংলা।।মোংলায় হাম-রুবেলা টিকাদান ক্যাম্পেইন-২০২০ এর উদ্বোধন করা হয়েছে।

আজ শনিবার (১২ ডিসেম্বর) সকালে সাড়ে ১০ টায় মোংলা পোর্ট পৌরসভা কতৃপক্ষের আয়োজনে মোংলা সেন্ট পলস হাসপাতালে এ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন বাগেরহাট জেলার সিভিল সার্জন কে এম হুমায়ন কবীর।

এ সময় তিনি বলেন, বাংলাদেশে স্বাস্থ্য খাতের সাফল্যের কারণে দেশ পোলিও মুক্ত হয়েছে, এবার হাম-রুবেলা মুক্তও হবে।আমরা শিশুদের দশটির মতো টিকা দিয়ে থাকি।

টিকা দানের মাধ্যমে আমরা দেশকে পোলিও মুক্ত করতে পেরেছি। টিকা দানের সাফল্যের কারণে প্রধানমন্ত্রী ভ্যাকসিন হিরো খেতাব পেয়েছেন।

এখন দেশকে হাম-রুবেলা মুক্ত করতে হবে। টিকা স্বাস্থ্য খাতের অনন্য ব্যবস্থা। টিকা নিলে স্বাস্থ্যের ওপর চাপ কমে, অসুখ কম হয়। টিকার কারণে মানুষের আয়ুও বেড়েছে।

দেশের ৯০ শতাংশ শিশুকে টিকার আওতায় আনতে পেরেছি। শিশুদের প্রতি আমাদের যত্নশীল হতে হবে। শিশুরা আমাদের প্রিয়জন, তাদের টিকা দেওয়া নিশ্চিত করার দ্বায়িত্ব অভিভাবকদের। আমরা টিকা দেওয়ার মাধ্যমে শিশুদের মৃত্যু ঝুঁকি কমাতে পারি।

মোংলা পোর্ট পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব জুলফিকার আলীর সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন বাগেরহাট জেলার সিভিল সার্জন কে এম হুমায়ন কবীর, জীবিতোষ বিশ্বাস, প্যানেল মেয়র  আলাউদ্দিন, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা, ডাঃ মুশফিকুর রহমান, সার্ভেল্যাইন্স এন্ড ইমুনাইজেশন মেডিকেল অফিসার, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বাগেরহাট,সিষ্টার অনি সাহা, মেট্রো সেন্ট পলস্ হাসপাতাল, এস এম বাদল, স্যানিটারী ইন্সপেক্টর মাসুদ আলস, স্বাস্থ্য সহকারী, দিপালী রানী সরকার, টিকাদান সুপারভাইজার, মিজানুর রহমান, টিকাদানকারী সহ অন্যান্য কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ সহ উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার প্রতিনিধিরা।

অনুষ্ঠান শেষে সিভিল সার্জন সহ আগত অতিথিগন সেন্ট পলস হাসপাতাল পরিদর্শন করেন।

আজ ১ম দিন মোংলায় ৪ টি পয়েন্টে এ টিকাদান কর্মসূচি চলচ্ছে। কেন্দ্র গুলো হলো:সেন্ট পলস্ হাসপাতাল, জাহানারার বাড়ি, রাতারাতি কলোনী, রনজিৎ গুপ্তের বাড়ি ১নং ওয়ার্ড, পৌরসভা অফিস ৯নং ওয়ার্ড।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এক বিজ্ঞতিতে জানিয়েছে, ১২ ডিসেম্বর ২০২০ থেকে ২৪ জানুয়ারি ২০২১ পর্যন্ত ছয় সমাপ্তব্যাপী চলবে এই টিকাদান কর্মসূচি। হাম নির্মূল ও রুবেলা নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রমের অংশ হিসেবে ক্যাম্পেইন চলাকালে সারা দেশে ৯ মাস থেকে ১০ বছরের নিচের প্রায় ৩ কোটি ৪০ লাখ শিশুকে ১ ডোজ এমআর টিকা দেওয়া হবে।

চলমান করোনা মহামারি বিবেচনা করে দেশে বিদ্যমান শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা, মাস্ক পরিধান করা, হাঁচি-কাশির শিষ্টাচার পালন ও সঠিক পদ্ধতিতে হাত ধোয়া ইত্যাদি স্বাস্থ্য সুরক্ষামূলক নিয়মাবলি যথাযথ প্রতিপালন সাপেক্ষে ক্যাম্পেইনটি পরিচালিত হবে।

আজ ১২ ডিসেম্বর থেকে নতুন বছরের ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত ছয় সমাপ্তব্যাপী চলবে হাম-রুবেলা টিকাদান কর্মসূচি। হাম নির্মূল ও রুবেলা নিয়ন্ত্রণে এই ক্যাম্পেইন চলাকালে সারা দেশে ৯ মাস থেকে ১০ বছরের নিচের প্রায় ৩ কোটি ৪০ লাখ শিশুকে ১ ডোজ এমআর টিকা দেওয়া হবে।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ১০৯ বার

[hupso]
সর্বশেষ খবর
বেত্রাবতী ডেস্ক।। জার্নালিস্ট এ্যাসোসিয়েশন, শার্শা, যশোর এর সাধারণ সভা ১২…